১৬ জীবন বিমা কোম্পানিকে আইডিআরএ’র শোকজ

তিন দফা চিঠি দেয়ার পরও বিমা নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে ত্রৈমাসিক তথ্য দেয়নি জীবন বিমা খাতের ১৬ কোম্পানি। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তথ্য না দেয়ায় কোম্পানিগুলো বিমা আইনের ৪৯ ধারার বিধান লঙ্ঘন করেছে। এ অবস্থায় কোম্পানিগুলোর বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেয়া হবে না তার কারণ জানতে চেয়েছে বিমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের (আইডিআরএ)।

রবিবার সংস্থাটির পরিচালক (গবেষণা) মো. শাহ আলম স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি সকল বিমা কোম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের কাছে পাঠানো হয়। চিঠিতে এক কার্যদিবসের মধ্যে নোটিশের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

কারণ দর্শানোর নোটিশ পাওয়া কোম্পানিগুলো হলো- আলফা লাইফ, ডায়মন্ড লাইফ, যমুনা লাইফ, এনআরবি গ্লোবাল লাইফ, প্রগতি লাইফ, প্রাইম ইসলামী লাইফ, প্রোগ্রেসিভ লাইফ, প্রোটেক্টিভ ইসলামী লাইফ, সানলাইফ, সানফ্লাওয়ার লাইফ এবং স্বদেশ লাইফ। এছাড়া আস্থা লাইফ, ডেল্টা লাইফ, গোল্ডেন লাইফ, ন্যাশনাল লাইফ এবং পপুলার লাইফ দু’ধরণের মধ্যে একটির তথ্য পাঠায়নি বলেও জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

বিমা খাতের এই নিয়ন্ত্রক সংস্থা জানিয়েছে, বিমা ব্যবসার দক্ষতা মূল্যায়ন এবং বিশ্ব ব্যাংক প্রকল্পের চাহিদা অনুযায়ী ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে তথ্য প্রয়োজন। সে প্রেক্ষিতে গত ৩০ জুন পৃথক দু’টি স্মারকে এবং ১২ জুলাই আরেকটি স্মারকে জীবন বিমা কোম্পানিগুলোর দু’ধরনের তথ্য চেয়ে চিঠি পাঠায় নিয়ন্ত্রক সংস্থা। তবে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে উল্লেখিত জীবন বিমা কোম্পানিগুলো তথ্য প্রেরণ করেনি।

কারণ দর্শানোর চিঠিতে বলা হয়, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তথ্য প্রেরণ না করায় বিমা আইনের ৪৯ ধারার বিধান মোতাবেক উল্লেখিত বিমা কোম্পানিগুলোর বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তার কারণ আগামী এক কার্যদিবসের মধ্যে কর্তৃপক্ষ বরাবর নির্ধারিত ই-মেইলে পাঠাতে হবে।

ঢাকাটাইমস/১৯জুলাই/আরএ/এমআর

১৬ জীবন বিমা কোম্পানিকে আইডিআরএ’র শোকজ

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস

তিন দফা চিঠি দেয়ার পরও বিমা নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে ত্রৈমাসিক তথ্য দেয়নি জীবন বিমা খাতের ১৬ কোম্পানি। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তথ্য না দেয়ায় কোম্পানিগুলো বিমা আইনের ৪৯ ধারার বিধান লঙ্ঘন করেছে। এ অবস্থায় কোম্পানিগুলোর বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা নেয়া হবে না তার কারণ জানতে চেয়েছে বিমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের (আইডিআরএ)।

রবিবার সংস্থাটির পরিচালক (গবেষণা) মো. শাহ আলম স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি সকল বিমা কোম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তাদের কাছে পাঠানো হয়। চিঠিতে এক কার্যদিবসের মধ্যে নোটিশের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

কারণ দর্শানোর নোটিশ পাওয়া কোম্পানিগুলো হলো- আলফা লাইফ, ডায়মন্ড লাইফ, যমুনা লাইফ, এনআরবি গ্লোবাল লাইফ, প্রগতি লাইফ, প্রাইম ইসলামী লাইফ, প্রোগ্রেসিভ লাইফ, প্রোটেক্টিভ ইসলামী লাইফ, সানলাইফ, সানফ্লাওয়ার লাইফ এবং স্বদেশ লাইফ। এছাড়া আস্থা লাইফ, ডেল্টা লাইফ, গোল্ডেন লাইফ, ন্যাশনাল লাইফ এবং পপুলার লাইফ দু’ধরণের মধ্যে একটির তথ্য পাঠায়নি বলেও জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

বিমা খাতের এই নিয়ন্ত্রক সংস্থা জানিয়েছে, বিমা ব্যবসার দক্ষতা মূল্যায়ন এবং বিশ্ব ব্যাংক প্রকল্পের চাহিদা অনুযায়ী ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে তথ্য প্রয়োজন। সে প্রেক্ষিতে গত ৩০ জুন পৃথক দু’টি স্মারকে এবং ১২ জুলাই আরেকটি স্মারকে জীবন বিমা কোম্পানিগুলোর দু’ধরনের তথ্য চেয়ে চিঠি পাঠায় নিয়ন্ত্রক সংস্থা। তবে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে উল্লেখিত জীবন বিমা কোম্পানিগুলো তথ্য প্রেরণ করেনি।

কারণ দর্শানোর চিঠিতে বলা হয়, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তথ্য প্রেরণ না করায় বিমা আইনের ৪৯ ধারার বিধান মোতাবেক উল্লেখিত বিমা কোম্পানিগুলোর বিরুদ্ধে কেন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তার কারণ আগামী এক কার্যদিবসের মধ্যে কর্তৃপক্ষ বরাবর নির্ধারিত ই-মেইলে পাঠাতে হবে।

ঢাকাটাইমস/১৯জুলাই/আরএ/এমআর

নিউজ সোর্স : ১৬ জীবন বিমা কোম্পানিকে আইডিআরএ’র শোকজ

Leave A Reply

Your email address will not be published.