মাসের পর মাস কোরবানির মাংস ফ্রিজে সংরক্ষণ না করে বিতরণ করুন


মাসের পর মাস কোরবানির মাংস ফ্রিজে সংরক্ষণ না করে বিতরণ করুন

পৃথিবী আবার স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরতে কতো দিন লাগবে সেটি এখনও অনিশ্চিত। সমস্ত পৃথিবীকে এখনও ভোগাচ্ছে করোনাভাইরাস। তবে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মানুষ একটু বেশি সচেতন ছিল বিধায় তারা অনেকটা স্বাভাবিক জীবনযাপনের দেখা পেয়েছেন। কিন্তু অন্য দেশের তুলনায় বাংলাদেশে বর্তমানে আরও বেশি করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুহার বেড়েছে। কোভিড-১৯ সংক্রমণ যেভাবে বাড়ছে; ভবিষ্যৎ বলছে, পরিস্থিতি আরও ভয়ঙ্কর হতে যাচ্ছে!

আসন্ন কোরবানির ঈদ হয়তো সবার মুখে সমান হাসি ফোটাবে না! কারণ একদিকে করোনার তাণ্ডব, অন্যদিকে সাধারণ মানুষের অর্থনৈতিক মন্দা ও দৈনতা।

এতে যেমন অসচ্ছলদের ক্ষুধা মিটবে, তেমনি হবে মানবতার কল্যাণ। আর এই আত্মত্যাগই তো কোরবানির আসল মাহাত্ম্য! 
সবার কাছে অনুরোধ, সাবধানতা মেনে ঈদ উদযাপন করুন। নিজে সুস্থ থাকুন। সরকারি বিধিনিষেধ মেনে চলুন। নিজের পরিবার স্বজনের সুরক্ষার নিশ্চিত করুন।

 

(ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)

 

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা

নিউজ সোর্স : মাসের পর মাস কোরবানির মাংস ফ্রিজে সংরক্ষণ না করে বিতরণ করুন

Leave A Reply

Your email address will not be published.