এখনো ‘বাতিল’ হওয়ার শঙ্কায় টোকিও অলিম্পিক

টোকিও অলিম্পিক-২০২০ বাতিলের জন্য মিছিল     -ফাইল ফটো

জাপানের টোকিওতে আগামী ২৩ জুলাই পর্দা উঠতে যাচ্ছে ‘দ্য গ্রেটেস্ট শো অফ  আর্থ’ খ্যাত অলিম্পিকের। তবে গেমস শুরুর আগেই বেড়েছে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা। এমন পরিস্থিতিতে একেবারে শেষ মুহূর্তে গিয়েও দেখা দিয়েছে অলিম্পিক বাতিলের শঙ্কা।

প্রতিদিন নতুন করে আক্রান্ত হচ্ছেন গেমসের সঙ্গে সম্পৃক্ত খেলোয়াড় ও অন্যান্যরা। আয়োজক শহরেও করোনাভাইরাস ছড়াচ্ছে নতুন আতঙ্ক। এমন পরিস্থিতিতে জাপানে অলিম্পিক বাতিলের দাবি ক্রমশ জোরালো হচ্ছে।

বৈশ্বিক ক্রীড়ার সর্ববৃহৎ আসরটি এখনো বাতিল হওয়া সম্ভব কি-না এমন প্রশ্নে আয়োজক কমিটির প্রধান তোশিরো মুতো বলেন, করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা কেমন হবে তা আমরা অনুমান করতে পরছি না। তাই আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লে আমরা আলোচনা চালিয়ে যাব।

তিনি যোগ করেন, করোনাভাইরাস পরিস্থিতির ওপর ভিত্তি করে আবারো আমরা পাঁচ পক্ষের বৈঠকে বসব। এই মুহূর্তে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে পারে, আবার কমতেও পারে। আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লে আমাদের কি করণীয় সেটা ভেবে দেখব।

লন্ডনের কিংস কলেজের জনস্বাস্থ্য বিভাগের সাবেক পরিচালক কেনজি শিবুয়ার মতে, আসরের জৈব-সুরক্ষা বলয় এরমধ্যে ভেঙে পড়েছে। অ্যাথলেট ভিলেজে কিংবা অন্যত্র দলগুলোর থাকার কিছু জায়গা এবং স্থানীয়দের সঙ্গে মেলামেশার ফলে অলিম্পিক সংশ্লিষ্টদের মধ্যে রোগটি সংক্রামক আকারে ছড়িয়ে পড়তে পারে।

সামগ্রিকভাবে জাপানে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি অন্যান্য দেশের তুলনায় খারাপ না হলেও দেশটিতে এখন পর্যন্ত আট লক্ষের বেশি মানুষ এই রোগে আক্রান্ত হয়েছেন এবং প্রাণ হারিয়েছেন পনের হাজার মানুষ।

নিউজ সোর্স : এখনো ‘বাতিল’ হওয়ার শঙ্কায় টোকিও অলিম্পিক

Leave A Reply

Your email address will not be published.