চাকরির নাম করে ৪ কোটি টাকা আত্মসাত, মূলহোতা গ্রেফতার

- Advertisement -

মুক্তা মনি পানি ও টিএমএফ ট্রেডার্সের এজেন্ট ও চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণার মাধ্যমে প্রায় চার কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে তরিকুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে রংপুর মেট্রোপলিটন গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

শনিবার দুপুরে রংপুর ডিবি পুলিশ অফিসে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান উপ-পুলিশ কমিশনার কাজী মুত্তাকি ইবনু মিনান। রংপুর মহানগরসহ দেশের বিভিন্ন এলাকার পাঁচ শতাধিক ব্যক্তির কাছ থেকে ওই টাকা হাতিয়ে নেয়া হয়।

প্রেস ব্রিফিংয়ে বলা হয়, রংপুর মহানগরীর ইসলামবাগে একটি আধুনিক অফিস নিয়ে মুক্তা পানি ও টিএমএফ ট্রেডার্সে এজেন্ট ও চাকরি দেয়ার জন্য পত্রিকায় ভুয়া বিজ্ঞপ্তি দেয় প্রতিষ্ঠান দু’টি। এতে রংপুর মহানগরসহ বিভাগের আট জেলা থেকে প্রায় ছয় শ’ আবেদন পড়ে। সাক্ষাৎকারের সময় অন্তত ৫০০ জনকে বাছাই করা হয়। পরে তাদের প্রত্যেকের কাছ থেকে ৫০ হাজার থেকে তিন লাখ টাকা পর্যন্ত জামানত হিসেবে মোট চার কোটি নিয়ে লাপাত্তা হন তরিকুল ও তার দুই সহযোগী মোতালেব এবং ফিরোজসহ অন্যরা।

এ বিষয় ভুক্তভোগীরা চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে রংপুর মহানগরীরর কোতয়ালী থানায় একটি অভিযোগ করেন। এর তদন্তের দায়িত্ব দেয়া হয় ডিবি পুলিশকে। আড়াই মাস তদন্তের পর অভিযান চালিয়ে প্রতারণা চক্রের মূলহোতা তরিকুলকে বগুড়ার শিবগঞ্জের কালিতলা বাজার থেকে শুক্রবার রাতে গ্রেফতার করা হয়। তার সহযোগিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে বলেও জানান উপ-পুলিশ কমিশনার কাজী মুত্তাকি ইবনু মিনান।

তিনি আরো জানান, তরিকুলের নামে ঢাকার নিকুঞ্জে বহুতল ভবনে ফ্ল্যাট রয়েছে। এ ছাড়াও তাদের সম্পদসহ অন্য বিষয়ে খোঁজ-খবর নেয়া হচ্ছে। তরিকুলের কাছ থেকে প্রতারণার শিকার ব্যক্তিদের টাকা ফিরিয়ে দেয়ার ব্যপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

Leave A Reply

Your email address will not be published.